Today 26 May 2020
banner
নোটিশ
ব্লগিং করুন আর জিতে নিন ঢাকা-কক্সবাজার রুটের রিটার্ন বিমান টিকেট! প্রত্যেক প্রদায়কই এটি জিতে নিতে পারেন। আরও আছে সম্মানী ও ক্রেস্ট!
banner

এনালগ যুগের কবি খোন্দকার আশরাফ হোসেন এর একটি বিখ্যাত কবিতাংশ /

লিখেছেন: আহমেদ রুহুল আমিন | তারিখ: ২০/১১/২০১৪

এই লেখাটি ইতিমধ্যে 969বার পড়া হয়েছে।

ফে ব্রু য়া রী তে জ নৈ ক বা গা ন মা লি ক

কবি ও কুকুরদের এইখানে আসতে দিওনা ।
আমাদের সুখের নিদ্রায় ওরা বড়ো উৎপাত।
কবি ও কুকুরদের দূরে রাখো
বিশেষত এই মাসে,
ওরা শুধু কবরের মাটি খুঁড়ে বেদনা জাগাতে ভালবাসে ।
কালকাসুন্দের পাতা লেপেছি এ হৃদয়ের সুগভীর ক্ষতে,
স্মরণের ডালাগুলো একে একে বন্ধ করে লাগিয়েছি চাবি,
বাগানের কোথাও পাবেনা খুঁজে এক ফোটা লাল রক্তপাত,
যুদ্ধের সকল চিহ্ন শহুরে দেয়ালগুলো কবেই মুছেছে –
নিপুনা নটিনী যথা রাতের সকল প্রসাধন
তুলে ফেলে পুনর্বার সেজে নেয় নবতর নাচের সন্ধ্যায়।
আমাদের রমণীরা কোন কালে ধর্ষিতা হয়েছে কিনা
তাদের ভ্রুভঙ্গি দেখে হাসির ফোয়ারা দেখে
ভুলেও পড়েনা মনে । আমাদের জননীরা শুধু
মাঝে মাঝে আজো কাঁদে , এই যত বিড়ম্বনা ,
বিশেষত এই মাসে
কবি ও কুকুরদের পাড়াময় আর্তনাদ কানে ভেসে আসে,
ওরা শুধু কবরের মাটি খুঁড়ে বেদনা জাগাতে ভালবাসে ।
………………………………………………………
………………………………………………………
কবি ও কুকুরদের এইখানে আসতে দিওনা ।
ওদের নখরে শুধু উঠে আসে স্মৃতির কবর থেকে মৃত
ভায়ের বোনের লাশ, আমাদের সমাহিত স্মৃতির কাফন ।
কবি ও কুকুরদের দূরে রাখো
বিশেষত এই মাসে,
ওরা শুধু কবরের মাটি খুঁড়ে বেদনা জাগাতে ভালবাসে ।

ময়মনসিংহের জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ে উপাচার্য্য থাকাকালীণ এইতো সেদিন অকাল প্রয়াত উত্তর আধুনিকতার এই বরেণ্য কবি এর আগে অধ্যাপনা করেছেন প্রাচ্যের অক্সফোর্ড খ্যাত ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে তাও আবার ইংরেজী সাহিত্যে । ঐতিহ্য সূত্রকে ছিন্ন না করেও আশির দশকে তিনি বাংলা কবিতার মুখ ঘুরিয়ে দিয়েছিলেন নন্দনের নতুন অভিমুখে ; কালের সমূহ সংলাপ কন্ঠে ধারণ করেও উচ্চারণ করেছেন চিরকালীণতার শব্দমালা ; দর্শন ও জীবনের নানা মাত্রিকতার সমিকরণ তাঁর কবিতাকে করেছে গভীর ও তীক্ষèধার । সেই সময় সমসাময়িক আরো অনেক গুণি কবি-লেখকদের তখন একটা আলাদা জগৎ বাংলাদেশে গড়ে উঠেছিল । মুলতঃ ঢাকাকেন্দ্রীক এই জগৎ সারা বাংলাদেশকে রিপ্রেজেন্টেশন করতো কিছু সুস্থ ধারার সাহিত্যসাময়িকীর মাধ্যমে । এমন কয়েকটির নাম ছিল-কবিতাপত্র একবিংশ (তাঁর সম্পাদিত ) ,সাহিত্যপত্র, বই, সচিত্র সন্ধ্যানী কিংবা দৈনিক পত্রিকা গুলোর মধ্যে দৈনিক সংবাদ, দৈনিক ইত্তেফাক, দৈনিক বাংলাসহ তখনকার প্রতিষ্ঠিত সব দৈনিকের সাপ্তাহিক বিশেষ প্রকাশনার বিশেষ পাতায় যা উম্মুখ হয়ে সাহিত্য প্রেমিদের এইসব গুণি লেখকদের লেখার সাখে এক বিনিসুতোর বন্ধণ তৈরী হয়েছিল । তার সাথে যুক্ত ছিল বাৎসরিক বই মেলায় প্রকাশিত নুতন বই এর সমাহার । এক অজানা আনন্দে পাঠকেরা হুমরী খেয়ে পড়ত বই মেলার নুতন বই এর স্টল গুলোতে । সেই সাথে থাকতো প্রিয় লেখকদের অটোগ্রাফ নেয়ার প্রতিযোগিতা । সেই এনালগ যুগের কবি খোন্দকার আশরাফ হোসেন কিংবা সমসাময়িক সেইসব গুণি কবিদের প্রাণবন্ত কবিতা কি আজকের ডিজিটাল মানুষকে আকর্ষণ করে ? এর জবাব – হয়তো হ্যাঁ , হয়তো না !!( তাঁর ফে ব্রু য়া রী তে জ নৈ ক বা গা ন মা লি ক – কবিতার কিয়দাংশ এই প্রজন্মের কবিতা প্রেমিকদের জন্য পোস্ট দিলাম । )

৯৫৩ বার পড়া হয়েছে

লেখক সম্পর্কে জানুন |
#কায়েতপাড়া, পঞ্চগড় সদর, পঞ্চগড় । #চল্লিশ দশকে অকাল প্রয়াত ছোট মামার কলকাতার সংগ্রহকৃত কিশোর ক্লাসিক " শুকতারা " ম্যাগাজিনে প্রকাশিত রবীন্দ্র সম-সাময়িক ( যেখানে তাঁর লেখা ছবিসহ সরাসরি প্রকাশ হতো) বিভিন্ন ছড়া/কবিতা সত্তর আশির দশকে পাঠে শিশু মনে কল্পনার দোল খেত । সেই থেকে শুরু । লেখা-লিখি টুকটাক । ভাল লাগে কবিগুরু , বিদ্রোহী,সুকান্ত -জীবনানন্দ, সত্তর-আশির দশকের আবুলহাসান, দাউদ হায়দার,খোন্দকার আশরাফসহ অনেক কবির লেখা । সমরেশ মুজুমদার,সব্যসাচি সৈয়দ হক,আনিসুল হক, সদ্যপ্রয়াত হুমায়ুন আহমেদ,ইমদাদুল হক মিলন প্রিয় গল্পকার/লেখকের তালিকায় । # প্রিয় ব্যাক্তিত্ত্ব : হযরত মোহাম্মদ (সা.) । # প্রিয় ব্যক্তি : মা-বাবা । # যা আশ্চয্য করে : পবিত্র কোরআন, বিশ্ব- প্রকৃতি, কম্পিউটার-তথ্য প্রযুক্তি । #দু'সন্তানের জনক ।
সর্বমোট পোস্ট: ৭৯ টি
সর্বমোট মন্তব্য: ১৬২ টি
নিবন্ধন করেছেন: ২০১৩-১১-১৫ ১৭:১৮:৩৫ মিনিটে
banner

৩ টি মন্তব্য

  1. সহিদুল ইসলাম মন্তব্যে বলেছেন:

    লেখা পড়ে বেদনা ভারাক্রান্ত হয়ে গেলাম, ধন্যবাদ লেখক , ভালো থাকবেন সদায়।

  2. দীপঙ্কর বেরা মন্তব্যে বলেছেন:

    ভাল বিষয় জানা গেল
    ধন্যবাদ

মন্তব্য করুন

মন্তব্য করতে লগিন করুন.

go_top