Today 17 Dec 2017
banner
নোটিশ
ব্লগিং করুন আর জিতে নিন ঢাকা-কক্সবাজার রুটের রিটার্ন বিমান টিকেট! প্রত্যেক প্রদায়কই এটি জিতে নিতে পারেন। আরও আছে সম্মানী ও ক্রেস্ট!
banner

কবি কালিদাসের জন্মদিন আজ

লিখেছেন: ব্যবস্থাপনা সম্পাদক | তারিখ: ০৯/০৭/২০১৩

এই লেখাটি ইতিমধ্যে 428বার পড়া হয়েছে।

কবি কালিদাস রায় বর্ধমানের কড়ুই গ্রামে, ১৮৮৯ সালের ৯ জুলাই জন্ম গ্রহন করেন। চলন্তিকার পক্ষ থেকে এই দিনে আমরা তাকে গভীর ভাবে স্মরণ করছি।

 

তিনি ছিলেন কবি, শিক্ষাবিদ ও সাহিত্য-সমালোচক। ১৯১০ সালে বহরমপুর কলেজ থেকে বিএ পাস করেন। এরপর কিছুকাল কলকাতা স্কটিশ চার্চ কলেজে দর্শনশাস্ত্রে এমএ অধ্যয়ন করেন।

 

১৯১৩ সালে রংপুর জেলার উলিপুরে মহারানী স্বর্ণময়ী স্কুলের শিক্ষক নিযুক্ত হন। পরে ওই স্কুলের প্রধান শিক্ষক পদে দায়িত্ব পালন করেন। এই স্কুলে সাত বছর শিক্ষকতা করার পর চব্বিশ পরগনা জেলার বড়িশা উচ্চবিদ্যালয়ে এগারো বছর সহকারী শিক্ষক। দীনেশচন্দ্র সেনের আগ্রহে কলকাতার ভবানীপুরের মিত্র ইনস্টিটিউশনে সহকারী প্রধান শিক্ষকরূপে যোগ দেন। অবসর গ্রহণের আগ পর্যন্ত এখানেই শিক্ষকতা করেন।

 

তিনি রবীন্দ্রনাথের অনুসারী কবি। তার কাব্য-সাধনায় পল্লীপ্রীতি প্রগাঢ়। রোমান্টিক রসকল্পনা তার কবিতার অপর প্রধান গুণ। আখ্যানমূলক কবিতা রচনায় দক্ষতার পরিচয় রাখেন। কালিদাস রায়ের কবিতার ভাষা সহজ, সরল ও অনাড়ম্বর; অথচ হৃদয়গ্রাহী।

 

তার রচিত কাব্যগন্থ : কুন্দ (১৯০৮), কিশলয় (১৯১১), পর্ণপুট (প্রথম ভাগ ১৯১৪, ২য় ভাগ ১৯২১), ব্রজবেণু (১৯১৫), বল্লব (১৯১৫), ঋতুমঙ্গল (১৯১৬), ক্ষুদকুঁড়া (১৯২২), রসকদম্ব (১৯২৩), লাজাঞ্জলি (১৯২৪), হৈমন্তী (১৯২৪), চিত্তচিতা (১৯২৫), আহরণী (সঙ্কলন ১৯৩২), বৈকালী (১৯৪০), ব্রজবাঁশরী (১৯৪৫), আহরণ (সঙ্কলন ১৯৫০), গাথাঞ্জলি (১৯৫৭), সìধ্যামণি (১৯৫৮), শ্রেষ্ঠ কবিতা (১৯৬৪) এবং পূর্ণাহুতি (১৯৬৮)।

 

কালিদাস রায়ের রচিত পুস্তকের মধ্যে প্রাচীন বঙ্গ-সাহিত্য, বঙ্গ-সাহিত্য পরিচয়, শরৎ সাহিত্য, সাহিত্য প্রসঙ্গ (প্রথম ও দ্বিতীয় খণ্ড) ও পদাবলী সাহিত্য বিশেষভাবে উল্লেখযোগ্য। তার রচিত চণক সংহিতা, রঙ্গচিত্র ও চালচিত্র গ্রন্থ রম্যসাহিত্য হিসেবে উল্লেখযোগ্য।

১৯২০ সালে রংপুর সাহিত্য পরিষদ তাকে ‘কবিশেখর’ উপাধি দেয়। ১৯৫৩ সালে কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয় দেয় ‘জগত্তারিণী স্বর্ণপদক’। ১৯৬৩ সালে ‘সরোজিনী স্বর্ণপদক’ ও ‘আনন্দ পুরস্কার’ লাভ করেন। ১৯৬৩ সালে নিখিল ভারত বঙ্গ-সাহিত্য সম্মেলনের মূল সভাপতির দায়িত্ব পালন করেন। ১৯৬৮ সালে ‘পূর্ণাহুতি’ কাব্য গ্রন্থের জন্য ‘রবীন্দ্র স্মৃতি পুরস্কার’ লাভ। এ ছাড়া বিশ্বভারতী ‘দেশিকোত্তম’ উপাধি ও রবীন্দ্র ভারতী বিশ্ববিদ্যালয় সম্মানচূক ডি-লিট উপাধি দেয়। তিনি ১৯৭৫ সালের ২৫ অক্টোবরে কলকাতায় মৃত্যু বরন করেন।

৫৭০ বার পড়া হয়েছে

লেখক সম্পর্কে জানুন |
সর্বমোট পোস্ট: ৭৫ টি
সর্বমোট মন্তব্য: ৪৫৬ টি
নিবন্ধন করেছেন: ২০১৪-০৪-২০ ০৫:০৫:২৮ মিনিটে
Visit ব্যবস্থাপনা সম্পাদক Website.
banner

৪ টি মন্তব্য

  1. এ হুসাইন মিন্টু মন্তব্যে বলেছেন:

    জন্মদিনে কবির জন্যে শ্রদ্ধা, এবং আত্মার শান্তি কামনা করছি

  2. আমির হোসেন মন্তব্যে বলেছেন:

    কবি কালিদাসের জন্মদিনে শুভেচ্ছা রইল।

  3. আরিফুর রহমান মন্তব্যে বলেছেন:

    কবি কালিদাসের জন্মদিনে শ্রদ্ধানঞ্জলী এবং অভিনন্দন।

  4. শাহ্‌ আলম শেখ শান্ত মন্তব্যে বলেছেন:

    শুভ কামনা ।

মন্তব্য করুন

মন্তব্য করতে লগিন করুন.

go_top