Today 10 Apr 2020
banner
নোটিশ
ব্লগিং করুন আর জিতে নিন ঢাকা-কক্সবাজার রুটের রিটার্ন বিমান টিকেট! প্রত্যেক প্রদায়কই এটি জিতে নিতে পারেন। আরও আছে সম্মানী ও ক্রেস্ট!
banner

নিরন্তর

লিখেছেন: শ্যাম পুলক | তারিখ: ২০/১১/২০১৩

এই লেখাটি ইতিমধ্যে 834বার পড়া হয়েছে।

বহুযুগ  বন্দী  কপোতীর  মনোযন্ত্রনা করে আমার মনে বাসা;
আমি অসীম সমুদ্রের তলে তলে তোমারে খুঁজেছি, মেটেনি আশা।
নিচ্ছিদ্র  পৃথিবীর বুক চিড়ে উদ্ভব ঝর্ণা আমার মিটায় পিয়াসা।

বুড়িগঙ্গার  জল যে ব্যাথা  বয়ে  বেড়ায় দূর  অতীত স্মৃতির,
লালবাগ  কেল্লায়  যে যন্ত্রনা  না পাওয়ার, সে যন্ত্রনা বাঁধে ঘর
আমার  মনের মাঝে, নেশাতুর ধুঁপের ধুয়া আপনকে করে পর।

পিয়াসা মেটেনা, আশা আর স্বপ্নগুলো ঘর বাঁধে আত্মকেন্দ্রিকতায়,
যে শিশু মরে জন্মের পরেই তার জন্যে কষ্ট জমে মনে, জাগে ভয়
অভিনয় শেষে  অযাচিত ডাস্টবিনের পাশে  কেন জীবনের ক্ষয়!

সেই ভয়, সেই শুধু ভয়, প্রতি দিন সহস্র শিশু নিষিদ্ধ হয়ে জন্মে;
প্রতিটি মুহুর্ত কাটে ঘৃনার গন্ডিতে, সমাজের বন্ধিত্বে, অন্ধত্বে, ধর্মে।
হঠাৎ জন্ম নেয়া  শিশু  যেন পাপ করে বসেছিল  অন্যের কর্মে।

অসীম ক্ষমতাবান  ঈশ্বরও পারেনা  বাঁধিতে তারে ধর্মের বাঁধনে,
সাগরের  জলোচ্ছাসে ভেসে  গেল পুরো গ্রাম, অগ্নিলাভা বনে বনে,
তবু অভিমান ভুলেছে ভোরের দোয়েল, পানকৌড়ি জলের অলিঙ্গনে।

আমি শুধু ব্যাথার দহনে; গঙ্গা পাড়ে দূর্গ বানালো ইংরেজ শয়তান,
খিলজির রক্ত বাঙলার মাটিতে বিষ, তবু সেই রক্তের দান অভিমান
ভুলে গেছে প্রজাপতি বনে বনে, আগে কি ছিল সে ভুলে গেছে মন!

মেটেনা  পিয়াসা, কোন  এক অজানা  চিরন্তন রহস্যকে জানবে বলে
শুরু হয়েছিল মানব জীবন; আমার সেই মনে মন যেন সমুদ্রের জলে
নিরবধি ভেসে চলা তরী জানেনা তীর  কোথায়, কবে  যাবে কূলে।

অজানাকে জানা, রহস্যের হয়না কূলকিনারা যেন চীনের প্রাচীর ঘেরা।
নিরন্তর চলাকে জীবন ভেবে ব্যস্ত হয়েছে জীবনের চাহিদা মেটাতে যারা,
আমিও ভিড়ে যাই তাদের দলে, মিথ্যে ছলে জোনাকীরে  ভাবি তারা।

আলেয়া  সত্য হয়, দৃশ্যমান হয়ে বেঁচে  থাকে  মরীচিকার  প্রেমিকা;
সেই ভেবে প্রেম এসে নিয়ে যায় গোধুলীর আলো, রাত আঁধারে ঢাকা।
বৃষ্টিতে স্মৃতি হয় তার রুপ যার খোঁপায় কঁচুরীফুল, চোখে কাজলরেখা।

সেই রুপের পরশেই বেঁচে থাকা যেমন অবশ্যম্ভাবী মৃত্যুর আকস্মিকতা
জেনেও  বাঁচে   নিরন্তর  মানব  জীবন। নিঃস্ব  পৃথিবী  কথকথা
বেঁচে খায়। দিনে  দিনে  অতীত, বর্তমান, জীবন  হয়  রুপকথা।
২২.১০.১৩, জাজিরা।

৮৯৭ বার পড়া হয়েছে

লেখক সম্পর্কে জানুন |
আমার উপর হয়তো অনেকেই রাগ করেন। কারন আমি মাঝে মাঝে কবিতা পোস্ট ঠিকই করি কিন্তু কারোটা তেমন পড়ি না বা মন্তব্য করি না। ------------------------------------------------------------------------------ এ নিয়ে আমারও রাগ আছে আমার উপর। আমি যদি সব বাদ দিয়ে শুধু কবিতা লিখতে পারতাম আর আপনাদের লেখা পড়তে পারতাম তাহলেই আমার ভালো লাগতো।----------------------------------------------------------- ------------------------------------------------------------------------------------------------------------------- আসলে আমার সব চেয়ে বড় সমস্যা হল আমি যখন যা করি তাই করি অন্য কিছু পারি না। যখন কবিতা লেখি তখন শুধু কবিতা। আর কিছু পারি না। রাত দিন বসে বসে কবিতা। আবার যখন তা বাদ দিয়ে অন্য কিছু করি তখন আর আবার কবিতা নেই।-------------------------------------------------------------------------------- দেখা যায় মাঝে মাঝে এত কবিতা লেখি যে কোনখানে পোস্ট করার সময় পাই না। আবার মাঝে মাঝে সেচ্ছায় নির্বাসন নিয়ে নেই শুধু লেখালেখির জন্য। শহর থেকে দূরে কোথাও চলে যাই। সুতরাং নেট এ বসা সম্ভব হয় না। ------------------------------------------------------------------------------------------------------------------ আমার সম্পর্কে কেউ কিছু জানে না বলেও অভিযোগ আছে। ---------------------------------------------------- আমি একটি প্রাইভেট বিশ্ববিদ্যালয়ে ইলেক্ট্রিক্যাল এন্ড ইলেক্ট্রনিকস ইঞ্জিনিয়ারিং এ পড়ি। এবার ফোর্থ ইয়ার এ উঠেছি। মানে আমাকে আরও এক বছর পড়তে হবে। গত পনের বছর ধরে স্কুলে পড়তে পড়তে আমি হতাশায় জর্জরিত। আরও পড়তে হবে। কত বছর তা জানি না।--------------------------------------------------------- ---------------------------------------------------------------------------------------------------------------- মজার বিষয় হল প্রায় দশ বছর ধরে আমি লেখালেখির চেষ্টা করছি। কবি হব বলে লেখে যাচ্ছি কবিতা কিন্তু কোন প্রিন্ট মিডিয়ায় আমার লেখা প্রকাশ করতে পারি নি। আসলে পাঠাইতেই পারি নি। ---------------------- ----------------------------------------------------------------------------------------------------------------- আসলে আমার ছন্নছাড়া জীবন ভাল লাগে। রীতিনীতির ঊর্ধ্বের জীবন ভাল লাগে। এ জন্য মজা করে প্রায়ই আমি বলে।-------------------------------------------------------------------------------------------------------------- ** মহামানবেরা কোন নিয়ম মানে না, তাঁরা নিয়ম তৈরি করে। ------------------------------------------------- আসলে মজা করে বলা। আমি মহা মানব হতে চাই না। আমি শুধু হারিয়ে যেতে চাই। যেই মানুষগুলোকে আজ কেউ মনে রাখে না তাদের মত।---------------------------------------------------------------------------------- -------------------------------------------------------------------------------------------------------------------- ভাল থাকবেন। শুভকামনা সবার জন্য।
সর্বমোট পোস্ট: ১০৮ টি
সর্বমোট মন্তব্য: ৩৫৯ টি
নিবন্ধন করেছেন: ২০১৩-০৬-১১ ১২:১৬:২৩ মিনিটে
banner

৭ টি মন্তব্য

  1. এস এম আব্দুর রহমান মন্তব্যে বলেছেন:

    কবিতাট ভাল লাগল । শুভ কামনা, ভাল থাকুন ।

  2. শাহ্‌ আলম শেখ শান্ত মন্তব্যে বলেছেন:

    দাদা আপনি বরাবরাই ভাল লেখেন । তবে একটু দীর্ঘ হয় , তাতে মন্দ হয় না ।

  3. আমির হোসেন মন্তব্যে বলেছেন:

    নিরন্তর ভাল লাগছে।

  4. তাপসকিরণ রায় মন্তব্যে বলেছেন:

    আলেয়া সত্য হয়, দৃশ্যমান হয়ে বেঁচে থাকে মরীচিকার প্রেমিকা;
    সেই ভেবে প্রেম এসে নিয়ে যায় গোধুলীর আলো, রাত আঁধারে ঢাকা।
    বৃষ্টিতে স্মৃতি হয় তার রুপ যার খোঁপায় কঁচুরীফুল, চোখে কাজলরেখা।

    সেই রুপের পরশেই বেঁচে থাকা যেমন অবশ্যম্ভাবী মৃত্যুর আকস্মিকতা
    জেনেও বাঁচে নিরন্তর মানব জীবন। নিঃস্ব পৃথিবী কথকথা
    বেঁচে খায়। দিনে দিনে অতীত, বর্তমান, জীবন হয় রুপকথা।–খুব ভাল লাগে আপনার কবিতা–এক তুলনাবিহীন নিদর্শন খুঁজে পাই।অনেক ধন্যবাদ।

  5. শ্যাম পুলক মন্তব্যে বলেছেন:

    দাদা, আপনাদের দেয়া এই ভাললাগা, ভালবাসা টুকু নিয়েই তো বেঁচে আছি।
    নয়তো এই যন্ত্রনার পৃথিবীতে টিকে থাকা তো যায় না।

    অনেক ধন্যবাদ সবাইকে।

  6. দীপঙ্কর বেরা মন্তব্যে বলেছেন:

    খুব সুন্দর
    খুব ভাল লাগল ।

  7. সবুজ আহমেদ কক্স মন্তব্যে বলেছেন:

    মন মুগ্ধকর লিখা

    দারুন
    ””””””””””””’
    ভালো লাগলো কবি

    শুভ কামনা রইল

মন্তব্য করুন

মন্তব্য করতে লগিন করুন.

go_top