Today 01 Jun 2020
banner
নোটিশ
ব্লগিং করুন আর জিতে নিন ঢাকা-কক্সবাজার রুটের রিটার্ন বিমান টিকেট! প্রত্যেক প্রদায়কই এটি জিতে নিতে পারেন। আরও আছে সম্মানী ও ক্রেস্ট!
banner

নিষেধে থেকেও

লিখেছেন: দীপঙ্কর বেরা | তারিখ: ১৯/০১/২০১৫

এই লেখাটি ইতিমধ্যে 786বার পড়া হয়েছে।

পিংকি ছোট থেকেই গায়ে হাত দেওয়াকে গা সওয়া করে নিয়েছে । প্রথম যেদিন অনুভব করল সেদিন বুঝতে পেরেছিল ওরই দোষ ছিল । এত ভিড়ের মাঝে ঠেলে ঠুলে ঢুকে যাওয়া ঠিক হয় নি । নিজের অবস্থান বিবেচনা করা উচিত ছিল । মেয়েদের শরীর দেখলেই হামলে পড়ে ।
তারপর থেকে প্রায়ই শোনে যত অসুবিধা মেয়েদের । নিরাপত্তা যারা দেয় তারাই বেশি সুযোগ নেয় । বাসে ট্রেনে জমায়েতে গেটে পাড়ার অনুষ্ঠানে এমনকি রাস্তায় এমনভাবে গা ঠেসে দাঁড়ায় যেন এ ছাড়া যেন কোন উপায় নেই । বলাই বিপদ – কেন সোনার গা নাকি খাদ লেগে যাবে । পাশাপাশি একসাথে তো অন্যায় নয় । কিন্তু ইচ্ছাকৃত এ সব ? অবান্তর ভাবনার অস্বস্তি সর্বত্র । পিংকি ভাবে না আবার না ভেবে পারেও না ।
তাই পিংকি স্কুল থেকে বন্ধুদের সাথেই বাড়ি ফেরে । একা হলেই রাস্তা বদলে নেয় অথবা বেশি লোকজনের অপেক্ষা করে । মা বাবা দাদা দিদি যেটুকু পারে পিংকির জীবনযাত্রার সঙ্গে থাকে । আর নিজেও যে টুকু পারে বাঁচাকে বাঁচার মত বাঁচায় ।
কিন্তু কতক্ষণ ? তাই পিংকি আর একটু বুঝতে শিখে শরীরের ভাবনাই ছেড়ে দিল । এগিয়ে চলেছে নিজের পায়ে দাঁড়াতে । সামনে দাঁড়িয়ে পরিমাপ বুঝে নিজকে মানিয়ে নেওয়ার চেষ্টায় অনেকটাই সফল । চলনে বলনে পোষাকে পরিচ্ছদে আচারে আচরণে খুব সাহসী না হয়েও পিংকি নিজের অবস্থানে অধিকার অর্জন করছে মানুষ হিসেবে ।
-০-০-০-

৭৬৮ বার পড়া হয়েছে

লেখক সম্পর্কে জানুন |
বাংলা ভাষাকে আমি খুব ভালোবাসি । আসুন সবাই বাংলা খুব পড়ি আর লিখি শিখি ।
সর্বমোট পোস্ট: ৩৪৯ টি
সর্বমোট মন্তব্য: ৪১৭৩ টি
নিবন্ধন করেছেন: ২০১৪-০৬-১১ ১৫:১৮:২২ মিনিটে
banner

৬ টি মন্তব্য

  1. এই মেঘ এই রোদ্দুর মন্তব্যে বলেছেন:

    আসলেই দাদা ঠিক বলেছেন

    মেয়েদের নিজেদের নিরাপত্তা নিজেদেরকেই দিতে হয়

    ভাল লাগল

  2. মিলি মন্তব্যে বলেছেন:

    গল্পটা সময় উপযোগী তবে আরেকটু বড়/বিশদ হলে ভাল হত ।আজকাল শুধু মেয়ে শিশু না ছেলে শিশুরাও নিরাপদ নয় ।

  3. সহিদুল ইসলাম মন্তব্যে বলেছেন:

    অল্প কথায় খুব সুন্দর বাস্তব কথা।

মন্তব্য করুন

মন্তব্য করতে লগিন করুন.

go_top