Today 05 Jun 2020
banner
নোটিশ
ব্লগিং করুন আর জিতে নিন ঢাকা-কক্সবাজার রুটের রিটার্ন বিমান টিকেট! প্রত্যেক প্রদায়কই এটি জিতে নিতে পারেন। আরও আছে সম্মানী ও ক্রেস্ট!
banner

রৌতিসা

লিখেছেন: সুমন সাহা | তারিখ: ০৪/০৫/২০১৫

এই লেখাটি ইতিমধ্যে 1191বার পড়া হয়েছে।

সুন্দর লতানো গাছ
উড়ে যায় ফড়িং মন;
এধার-ওধার,
ভাবেনা সাত-পাঁচ।

চারাগাছ,
তল শুষে;
তুলে নেয় পলল জমিন,
মাথা রাখে ফেরোমনে
অলিকবাস।

হাতে আছে এক অজানা-
সাম্রাজ্যের ম্যাপ,
দলিলে লেখা আছে-
অগোছালো গন্তব্য
অনবরতঃ
অবিরত-
হেঁটে যাবার অভিপ্রায়,
আছে নাভিশ্বাস নিমন্ত্রণ
চোখে জড়ানো আছে;
সুপ্ত রৌতিসা।

অনাবাসী মেঘ পঁচন খোঁজে
সৌখিন বিষাদে;
হাত-পা অবশ হয়ে
গল্প হয় শেষ।।

ছবিঃ ইন্টারনেট থেকে সংগৃহীত।

১,১৮০ বার পড়া হয়েছে

লেখক সম্পর্কে জানুন |
কর্মজীবনে আমি একজন সফটওয়্যার প্রকৌশলী। শ্রমিক হিসাবে কাজ করছি পূবালী ব্যাংক লিমিটেডের জন্য। লেখালেখি করছি ১২ বছর যাবৎ। প্রথম ছাপার অক্ষরে লেখা প্রকাশিত হয় ২০০৪ সালে প্রথম আলোর "ছুটির দিনে" নামক একটি সাপ্তাহিকীতে "বেপরোয়া" ছদ্মনামে। অনলাইন লেখালেখিতে পদার্পণ করি ২০০৯ সালে "প্রথম আলো ব্লগ" এর হাত ধরে। সেখানেও আমি লেখালেখি করেছি "বেপরোয়া" নামে। একই সাথে লিখতে থাকি ফেসবুকে আমার পাতাতে ওই একই সময়ে। এরপর যুক্ত হই "মুক্ত ব্লগে" ২০১০ সালে "সুমনাস'শ" নাম ধারণ করে। সর্বশেষ যুক্ত হই "ঘুড়ি ব্লগ"-এ ২০১৪ সালে "সুমন সাহা" নামে এবং এখন থেকে চলন্তিকার সাথে যুক্ত হলাম ওই একই নামে। বেশ আগে একজন বলেছিলো, টেক পাবলিক হয়েও কিভাবে এমন লিখতে পারেন আপনি। আমি বলেছিলাম, "লেখারা নিজে থেকে এসে শব্দোৎপাত করলে কি করবো বলুন । অন্য কেউ হয়তো তাঁর কথাগুলো আমাকে দিয়ে লিখিয়ে নিচ্ছে। আমি লিখছি না, আমাকে দিয়ে খোদাই করানো হচ্ছে এই যা।" এই দেখুন লিখে দিলাম, "এ আমার আপন সত্ত্বা, মিলেমিশে একাকার হয়ে তোমার প্রাচীন নিশ্বাস মিশে, অন্ধকারের মাঝে এ আমি কাকে খুঁজি?..." অবশেষে এই অলেখক অবলেখনে বলছে, এই হিজিবিজি অংশখানি পুরোটুকু সময় দিয়ে পড়ার জন্য আপনাকে ধন্যবাদ জানাই। পাশে থাকুন, ভালো থাকুন, ভালো রাখুন।
সর্বমোট পোস্ট: ৭৬ টি
সর্বমোট মন্তব্য: ২৯৪ টি
নিবন্ধন করেছেন: ২০১৫-০১-০৩ ০২:৫৪:৩১ মিনিটে
banner

১০ টি মন্তব্য

  1. এই মেঘ এই রোদ্দুর মন্তব্যে বলেছেন:

    হেঁটে যাবার অভিপ্রায়,
    আছে নাভিশ্বাস নিমন্ত্রণ
    চোখে জড়ানো আছে;
    সুপ্ত রৌতিসা।

    সুন্দর কবিতা অনবদ্য

    আচ্ছা রৌতিসা মানে কি?

    • সুমন সাহা মন্তব্যে বলেছেন:

      সুন্দর মন্তব্যের জন্য ধন্যবাদ আপি।

      রৌতিসা মানে হচ্ছে আলোর তৃষ্ণা। রৌদ্রের তৃষ্ণা আরকি।

      শুভেচ্ছা জানবেন।

  2. সবুজ আহমেদ কক্স মন্তব্যে বলেছেন:

    পড়ে বেশ ভালো লাগলো অনেক
    মুগ্ধকর লিখা
    ………………….নাইস

  3. অনিরুদ্ধ বুলবুল মন্তব্যে বলেছেন:

    কবিতায় নতুন শব্দ পেলাম।
    কবি – ফেরোমনে, রৌতিসা শব্দগুলোর মানে বলে দিলে বাধিত হই!
    ধন্যবাদ।

  4. টি. আই. সরকার (তৌহিদ) মন্তব্যে বলেছেন:

    আপনার কবিতা সবসময়ই একটু ভাবগম্ভীর লাগে । সহজে অর্থ খুঁজে পাওয়া কঠিন । পাঠক সমাজের উপকারারার্থে পোস্টের নিচে পাদটীকা আকারে কিছু অপরিচিত শব্দের অর্থ দিয়ে দিলে ভালো হয় ।
    কবিতা অসাধারণ । শুভেচ্ছা ও ভালোবাসা জানবেন প্রিয় ।

    • সুমন সাহা মন্তব্যে বলেছেন:

      কিছুটা ভাব গম্ভীর ধাঁচের হয় এটা ঠিক। কিন্তু শব্দগুলো খুব বেশি জটিল হয় বলেতো মনে হয় না। অপ্রচলিত শব্দ তবে প্রচলিত করতে ক্ষতি কি? লেখার মানেগুলোও ভীষণ সহজ।

      আপনি যে সবসময় পাশে থাকেন এটাই সবচেয়ে বড় প্রাপ্তি আমার। আপনার কথাগুলো হৃদয়ে গ্রহণ করলাম। আগামীতে এমন দরকার পরলে অবশ্যই যেভাবে বললেন সেরকমই হবে।

      আপনিও শুভেচ্ছা ও ভালোবাসা জানবেন প্রিয় ভাই।

      • টি. আই. সরকার (তৌহিদ) মন্তব্যে বলেছেন:

        পরামর্শ সাদরে গ্রহণ করার কথা জেনে খুবই ভালো লাগলো । আপনি খুব জটিল লিখেন এমনটা কিন্তু আমিও বলিনি ।

        তবে সম্ভবত নবম-দশম শ্রেণির “রচনার শিল্পগুণ” প্রবন্ধে পড়েছিলাম- “মীনক্ষোভাকূল কুবলয়” মানে ‘মাছের তাড়নায় পদ্ম কাপিতেছে’ ! সেখানে লেখক প্রথমটির পরিবর্তে দ্বিতীয়টি ব্যবহার করতে বলেছিলেন । কেননা, লিখার মাধ্যমে আমরা যে মেসেজটা পাঠককে দিতে চাই সেটাই যদি পাঠক বুঝতে না পারেন তবে আমাদের লিখার সার্থকতা কোথায় ?

        অনেক বলে ফেললাম বোধ হয় ! আমার সীমিত জ্ঞানে ভুল হলে ক্ষমাসুন্দর দৃষ্টিতে দেখার অনুরোধ রইলো । ভালো থাকবেন প্রিয় ।

        • সুমন সাহা মন্তব্যে বলেছেন:

          অনেক অনেক ধন্যবাদ ও শুভেচ্ছা জানবেন।

          আপনি ঠিকই বলেছেন। আপনার কথাগুলোতে যথেষ্ট যুক্তি রয়েছে। সেটা আমি গ্রহণও করলাম।

          এখানে এত বেশি বোধহয় কিছু ছিলো না। দুটি মাত্র শব্দ (রৌতিসা আর ফেরোমন) ছিলো একটু অপ্রচলিত। দুটি শব্দেরই ব্যাখ্যা আমি অন্য মন্তব্যগুলোতে দিয়েছি। আপনার এইরূপ বিশ্লেষণে আমি ভীষণ খুশি।

          এভাবেই পাশে থাকবেন সবসময়। ভালো থাকবেন।

মন্তব্য করুন

মন্তব্য করতে লগিন করুন.

go_top