Today 17 Jun 2019
banner
নোটিশ
ব্লগিং করুন আর জিতে নিন ঢাকা-কক্সবাজার রুটের রিটার্ন বিমান টিকেট! প্রত্যেক প্রদায়কই এটি জিতে নিতে পারেন। আরও আছে সম্মানী ও ক্রেস্ট!
banner
লেখক সম্পর্কে জানুন |
বাংলা ভাষাকে আমি খুব ভালোবাসি । আসুন সবাই বাংলা খুব পড়ি আর লিখি শিখি ।
সর্বমোট পোস্ট: ৩৪৯ টি
সর্বমোট মন্তব্য: ৪১৭৩ টি
নিবন্ধন করেছেন: ২০১৪-০৬-১১ ১৫:১৮:২২ মিনিটে

মাখন তুলে খাওয়ার স্বভাব বৈচিত্র্যে
আশার তীর্থ লুকিয়ে থাকে,
পুণ্যস্নান নিজেকে লুকিয়ে রেখে, দেখে
জড়িয়ে পড়ছে সত্ত্বার পাকে।
ভাগ বাটোয়ারায় অনধিকার চিত্র
বার বার মুখোশে বিভক্ত
এবার জব্দ হওয়া বিশ্বাসের মিশেল
বয়ে যায় মোহময় রক্তে।
সহজ আক্ষরিক বদহজমে জটিল
খোঁজে যায় সহাস্য দিনান্ত
পাথর সরিয়ে যেটুকু ফলমূল
তাতেই সে আবার শান্ত।

বিস্তারিত পড়ুন

মৌনতায় দাঁড়িয়ে থাকে মহর্ষি
বিমগ্ন চিত্তের গভীরে ডুব দিয়ে
শুধু আত্মতুষ্টি খুঁজে পাবে ,
যতসব মর্যাদার লড়াই ওদের ওখান থেকে শুরু
বাকীটা কেবল গল্পের মত চিত্রবিন্যাস ;
সাজিয়েও লোপাট হয়ে যায় শব্দজাল
বাক্যের মুক্তি চেয়ে কতশত পথ ভাবনা
অন্ধকারের সূচিচিদ্র ক্যামেরামাত্র ।
কোন সুযোগ নেই তাই আর্তনাদে রাত্রির

বিস্তারিত পড়ুন

সুখের আগার বাপের বাড়ি
কাটিয়ে যাও চারটি দিন
কাশফুলের দুয়ার সাজাই
শিউলি ঝরাই ভোর রঙিন
শিশিরের আলতো ছোঁয়া
ঘাসের মুখ তোমার প্রতীক্ষায়
মুক্তি আলোর সুর খেলে
যায় নতুন ক্রেজের অপেক্ষায় ।
অ-সুখ ঘর-মন্ডপে
উদ্দাম মিলন দেয় আনন্দ হিল্লোল
বছরভর দুর্গতির বিনাশ
আশায় থিমের ভাবনা কল্লোল
ফুলেল আঁচলে মাখা
আকাশ সাদা মেঘের ভেলায়
আজন্মের যুগ

বিস্তারিত পড়ুন

আর আপডেট হচ্ছে না কেন ?

বিস্তারিত পড়ুন

পড়ছে
দেখা আর অদেখা ,
বুঝছে
তুমি আর সে ,

শিক্ষিত শিশুটি ।

বিস্তারিত পড়ুন

পলাশ নিষ্কর্মা । কোন কাজই পুরো করে উঠতে পারেনি । পড়তে পড়তে নয়ের ঘরেই ছেড়ে দেয় তাও বছরের মাঝখানে । বাবার ছোটখাটো ব্যাবসার ফ্লোটিং কাজ শুরু করেছিল কিন্তু এত গড়বড় করত যে বাবা বলল – যা , মাঠে কাজ কর

বিস্তারিত পড়ুন

স্বপ্নকে সাজালে হয়না
প্রেক্ষাপটে পরাতে হয় গয়না
তার উপরে সহ্য হবে কি হবে না
অপরের তাতে এসে যায় কি যায় না
নিজের ভরসায় আস্থা আছে কি না
তারপরে হয় স্বপ্নের উপস্থাপনা
আর জীবন মনোরম স্বচ্ছ আয়না ।
স্বপ্নের স্বপ্ন বেয়ে গড়ে ওঠে জীবন
এগিয়ে চলে আগামী পেয়ে স্বপ্ন

বিস্তারিত পড়ুন

কিছুটা সময় হাতে রেখে
এগিয়ে যাই ঘুর্ণিপাকে ,
পথ চলতি আশায় ঘোরে
সময় আজও দুর্বিপাকে ।
আঁকড়ে ধরে বালির স্তুপে
কত না জমে বালিয়াড়ি
ঘরে ফিরে ঘর খুঁজে মরে
জল ভাঙছে ছলের আড়ি ।
বোঝে না সে হৃদয় ব্যথা
জমছে আরো পাথারে
এবার পাড়ি দিতেই হবে
যতই করো আহা রে !

বিস্তারিত পড়ুন

আসছে বর্ষা আসছে বর্ষা
দুয়ার জুড়ে যে পাই ভরসা
আকুল জীবনে তীব্র দহন
ঝেঁপে বৃষ্টিতে হোক দমন
বিশ্বে আসুক ঝরঝর ধারা
শুষ্ক পথ হোক আত্মহারা
কদমের গন্ধেই মাদকতা
প্রাণবন্ত সুখের সার্থকতা ।

বর্ষা আসছে তাই সহসা
রজনীগন্ধার কত ভাষা
বর্ষা আসছে ভরবে নদী
অনাবিল স্রোত নিরবধি ;
বৃষ্টি হোক আনন্দধারা
মুক্ত বাসনায়

বিস্তারিত পড়ুন

(১)
নিজের হতে চাওয়া
নিজেকেই অভ্যাস করতে হবে ;
অপর তো হাত বাড়িয়েই আছে ।

(২)
অজানাটুকুই রহস্যের বেড়াজাল ,
আমি তারই কোনায় কোনায়
তোমার সুগন্ধ খুঁজি ।

(৩)
সম্পর্কের বীজ
অঙ্কুরেই বিনষ্ট,
আগামীর ডালপালায়
শুধু ছায়া নেই ছায়া নেই।

বিস্তারিত পড়ুন

আরও একবার বার বার প্রমাণিত
মানুষ আজও সেই ইতর শ্রেণি বিশেষ ;
দুটো হাত আসলে
যেন তেন প্রকারে নিষ্পাপ ছিঁড়ে ফুঁড়ে
পাপ ঘেঁটে পাপী হয়ে যায় ।
নিজেই নিজের শক্তির খোঁজে অস্ত্র হয়ে
ফাটিয়ে ফুটিয়ে খুঁচিয়ে খুবলিয়ে বঁটি বঁটি করে
ধ্বংসস্তুপেই তার শান্তি খোঁজে ।
তারপর সেই সূত্রে

বিস্তারিত পড়ুন

এখনো শীতের হাওয়ায় ঘুড়িটা দুলছে
আমি আমাকে প্রায়ই তেমনিই দেখি ।
পরিযায়ী পাখিরা আর আসে না এ তল্লাটে
জায়গা না পেয়ে আমারও অবস্থা এমন হবে নাকি ?
পাতারা হলুদ হয়ে একটা একটা খসছে
আমারও কি সময় হয়ে আসছে ধীরে ধীরে ।
শীতের ওম টুকু মাখব গায়
তাই

বিস্তারিত পড়ুন
go_top