Today 02 Dec 2021
banner
নোটিশ
ব্লগিং করুন আর জিতে নিন ঢাকা-কক্সবাজার রুটের রিটার্ন বিমান টিকেট! প্রত্যেক প্রদায়কই এটি জিতে নিতে পারেন। আরও আছে সম্মানী ও ক্রেস্ট!
banner

নৌ-দুর্ঘটনা নিয়ে কাজ করার অনেকগুলো পথ আমাদের সামনে খোলা রয়েছে ।

লিখেছেন: সাঈদ চৌধুরী | তারিখ: ০৫/০৮/২০১৪

এই লেখাটি ইতিমধ্যে 1147বার পড়া হয়েছে।

নৌ-দূঘটনা নিয়ে আমার এই লেখাটি প্রথম আলোতে এসেছিলো । প্রকাশিত হয়েছে বদলে যাও বদলে দাও ব্লগেও ।কাজও হয়েছিলো । কিন্তু সময়ের আর্বতে আবার স্তিমিত । আবার মানুষ মরছে । কাকে দেখাবো যে আমরাও ভাবি কিন্তু কিছু করার ক্ষমতা একেবারেই কম আমাদের মত সাধারন মানুষের ।তবুও….

বেশীরভাগ ক্ষেত্রে মূল কারন দুটো ।অধিক যাত্রী এবং আরেকটি হচ্ছে যন্ত্রপাতি ঠিকমত পরীক্ষা না করা এবং কোন সময় চালকের অদক্ষতা । যখন কোন সমস্যার সমাধান সম্পর্কে অবগত হওয়া যায় কিন্তু তারপরও সমস্যা থেকেই যায় এর কারন হচ্ছে এই সমস্যা থেকে নিশ্চই কেউ লাভবান হচ্ছে বা সমস্যা জিইয়ে রেখে জনগনকে সমস্যা সমাধানের স্বপ্ন দেখিয়ে আবার ক্ষমতায় আশার নকশা আকছে । যে যাই করুক আমরা সাধারন মানুষ আমাদের চিন্তা এখন আমাদেরই করতে হবে । ৩০০ যাত্রী নিয়ে একটি লঞ্চ ডুবে গেল । এর সমাধানে শুধু পেলাম তদন্ত কমিটি আর কিছু আর্থিক সাহায্য । এত কিছু ভাবার সময় এখন নেই । দ্রুত গতিতে কাজ করতে হবে ।
নৌ-দুর্ঘটনা কমানোর জন্য অতিসত্বর নৌপুলিশ বাহিনী গঠন করা প্রয়োজন । যারা প্রতিটি ষ্টেশনে যাত্রীর পরিমান, ইঞ্জিনের অবস্থা এবং আনুসাঙ্গিক সবকিছু পরীক্ষা নিরীক্ষা করবে এবং ব্যবস্থা নেবে ।বেশ কতগুলো দ্রুতগতির উদ্ধারকারী জাহাজ নদীতে সবসময়ের জন্য রাখতে হবে ।যাতে খবর পাওয়া মাত্র দুর্ঘটনাস্থলে পৌঁছাতে পারে ।দুর্ঘটনা কবলিত জাহাজ যেন দ্রুত গতিতে খবর পাঠাতে পারে সে ব্যবস্থা করা একান্ত প্রয়োজন । আর অবশ্যই যে চালকগুলো অদক্ষ কিন্তু বর্তমানে এ পেশার সাথে জরিত তাদের কিছুদিনের প্রশিক্ষনের ব্যবস্থা করা । অদক্ষ চালকগুলোকে ছাটাই করলে চালক সংকটে পড়ে যেতে পারে । একারনে দীর্ঘমেয়াদি না হলেও স্বল্পমেয়াদি প্রশিক্ষনের ব্যবস্থা করতে হবে । প্রথম আলোকে ধন্যবাদ এইজন্য যে বন্ধুসভার উদ্যোগে বদলে যাও বদলে দাও এর ব্যনারে অনেক বড় মানব বন্ধন করা হয়েছে । যাতে অবশ্যই সচেতনতা বাড়বে এবং সরকারের দৃষ্টি এই দিকে পড়বে । কিন্তু মানব বন্ধন বা অন্যান্য কার্যক্রম প্রতিবাদের ভাষা হলেও এগুলো প্রতিরোধের জন্য কি কি করা যেতে পারে তা নিয়ে জনমত সংগ্রহ করে আমরা সরকারকে একটি স্বারক লিপি দিতে পারি । সরকার অবশ্যই তখন এটা নিয়ে বেশী করে ভাবতে বাধ্য হবে । আর যতগুলো লেখা এ নিয়ে বের হয়েছে সবগুলোই প্রানের আকুতি প্রকাশ করে । কয়েকদিন পরেই এই হারানোর বেদনাগুলো ভুলে গেলে চলবেনা । তাহলে কাজ স্থির হয়ে যাবে । একটি দীর্ঘ মেয়াদি পরিকল্পনা এবং পরিকল্পনা অনুযায়ী কাজই সফলতা নিয়ে আসতে পারে

১,১৩৯ বার পড়া হয়েছে

লেখক সম্পর্কে জানুন |
দুর্নীতি মুক্ত বাংলাদেশ গড়ার জন্য কাজ করে যেতে চাই ।
সর্বমোট পোস্ট: ১৯০ টি
সর্বমোট মন্তব্য: ৬৯২ টি
নিবন্ধন করেছেন: ২০১৩-০৯-১৭ ১২:১২:৫১ মিনিটে
banner

৪ টি মন্তব্য

  1. আহমেদ রব্বানী মন্তব্যে বলেছেন:

    কবে আ র নড়বে টনক ??
    এভাবে শতশত প্রাণ অকালে ঝরে যাবে আর কত???

  2. আহমেদ রব্বানী মন্তব্যে বলেছেন:

    আপনার আমার মত করে নেতারা কবে যে ভাবতে শিখবে!!

  3. এই মেঘ এই রোদ্দুর মন্তব্যে বলেছেন:

    প্রতিবার একই ঘটনার পুনরাবৃত্তি

  4. এস এম আব্দুর রহমান মন্তব্যে বলেছেন:

    একই ঘটনার পূনরাবৃত্তিতেও নেতাদের টনক নড়ছে না । শুভ কামনা ।

মন্তব্য করুন

মন্তব্য করতে লগিন করুন.

go_top