Today 25 Sep 2022
banner
নোটিশ
ব্লগিং করুন আর জিতে নিন ঢাকা-কক্সবাজার রুটের রিটার্ন বিমান টিকেট! প্রত্যেক প্রদায়কই এটি জিতে নিতে পারেন। আরও আছে সম্মানী ও ক্রেস্ট!
banner

স্মৃতির পাতা থেকে ( পর্ব – ১১-৭ )

লিখেছেন: এস এম আব্দুর রহমান | তারিখ: ১৯/০৮/২০১৪

এই লেখাটি ইতিমধ্যে 1127বার পড়া হয়েছে।

জাতিসংঘের উদ্দোগে সুদান সরকার ও রাজনৈতিক দলের মধ্যে শান্তি চুক্তি সম্পাদিত হলেও সেই চুক্তিতে এস , এল , এম/ এ(ডব্লিউ) এবং জি ই এম স্বাক্ষর করেনি ।সেই শান্তি চুক্তির শর্ত অনুসারে যুদ্ধ বিরতি কেহ লঙ্ঘন করে কিনা তা তদারকী করার জন্য ই জাতি সংঘের অধীনে বিভিন্ন দেশের সেনাবাহিনী ও পুলিশের সদস্যরা দারফোরে নিয়োজিত হয়েছে । আমরাও তারই অংশ হিসেবে দারফোরের জনমানবহীন মরুভূমিতে অবস্থান করছি । জাতি সংঘের নিয়ন্ত্রনে গড়ে উঠেছে আই , ডি , পি , ক্যাম্প ।দারফোরের বিভিন্ন এলাকা থেকে গৃহহীন মানুষদের এনে রাখা হয়েছে এ সব ক্যাম্পে । মৃত্যুর হাত থেকে নিজেদের বাঁচানোর জন্য আই , ডি , পি ,ক্যাম্পে এসে এরা হয়তো প্রাণে বেঁচে আছে , কিন্তু কোন কাজ কর্ম না থাকায় এরা সকলে ই অভাবে জর্জড়িত । দারফোর বাসিদের জীবিকার উপায় ই হচ্ছে পশু পালন ও এক সিজনে যা কিছু সম্ভব ফসল উৎপাদন । কিন্তু এই ক্যাম্পে বসে থেকে এ দুটোর কোনটিই হচ্ছে না , শুধু প্রাণটাই বেঁচে আছে । ক্যাম্পে দু একজন যুবক ছেলে আছে তাদের সাথে কথা বলে জানা যায় ,এখানে এমন কোন পরিবার নেই , যে পরিবারের দু এক জন লোক মারা যায়নি ।তাদের অধিকাংশ বন্ধু বান্ধবই খুন হয়েছে ।সৌভাগ্য ক্রমে তারা দু এক জন বেঁচে আছে । কারণ সরকার সমর্থিতরা নাগালের মধ্যে পেলে পুরুষ মানুষ কাউকেই জীবিত রাখেনি ।আসলে আমরা ইতিহাসে পড়েছি আরবের লোকেরা অসভ্য ছিল ।ছিল বললে ভুল হবে – অসভ্য ছিল , অসভ্য আছে , এবং অরো কতকালযে অসভ্য থাকবে তা বলা মুশকিল ।অধিকাংশ আরব দেশেইএখনও রাজা , বাদশা , আমীর প্রথা বলবৎ আছে । কাজেই নিজেদের প্রাধান্য বজায় রাখতে তারা প্রতি নিয়তই ধর্মের লেবাসে , ধর্মের দোহাই দিয়ে মানবাধিকার লংঘন করে যাচ্ছে ।কোথাও গনতন্ত্র নেই । কথা বলার ক্ষমতা নেই কারো ।যুগ যুগ ধরে বাদশাহী চালিয়ে যাচ্ছে বংশ পরম্পরায় । তাদের স্বর্গ সুখ খোয়াতে রাজি নয় তারা কিছুতেই । তাছারা আর্লাহ প্রদত্ত কিছু সম্পদ পাওয়ায় মানুষের আর্থিক চাহিদা কিছুটা হলেও দূর হয়েছে ।কাজেই অর্থে বিনীময়ে ভোগ বিলাসের সব রকম ব্যবস্থা তারা করে নিয়েছে নিজেদের বাস ভবনে । ফলে নিজেরা কোন শিক্ষার আলো পায়নি । ছেলে মেয়েদের শিক্ষা প্রদানের কোন চেষ্টাও তারা করছে না । শিক্ষার অভাবে কোন প্রকার মানবতাবোধ তাদের মধ্যে গড়ে উঠেনি ।আর আফ্রিকাতেতো উন্নয়নের ছোঁয়া লাগেনি কোন দিনই । এখানকার শাসকেরা দেশের উন্নয়ন করবে কার জন্য । তারা নিজেরা তো দেশ শাসন করছে অস্থায়ী চিন্তা ভাবনা নিয়ে । এ দেশকে নিজের দেশ হিসেবে মনের মধ্যে স্থান দেয়নি কখনও । দেশ শাসন করেছে তস্করের মনোভাবনিয়ে , সম্পদ লুটের জন্য । দক্ষিণ আফ্রিকার নেলশন ম্যান্ডেলার দেশের কথাতো আমরা কেউ ভুলনি এখনও । যেখানে দখলদারেরা স্থানীয় মেয়েদের ধরে এনে ধর্ষণ করে তারপর জবাই করে খেত ।দারফোরের শাসন চলছে সেই আরবীয় সভ্যতার লেবাসে ।খোদাতাআলা আরবীয়দের সভ্য বানানোর জন্য সেখানে ইসলাম ধর্ম নাজিল করে । সেই মহান ধর্মের ছোঁয়ায় সারা পৃথিবীর কোটি কোটি মানুষ সভ্য হয়েছে < কিন্তু যাদের জন্য ধর্ম নাজিল হয়েছিল , তাদের সভ্য করতে এ ধর্ম কোন কাজে এসেছে কিনা তা ভাববার বিষয় ।

১,১১৪ বার পড়া হয়েছে

লেখক সম্পর্কে জানুন |
সর্বমোট পোস্ট: ৩৩১ টি
সর্বমোট মন্তব্য: ২৪৮৪ টি
নিবন্ধন করেছেন: ২০১৩-০৯-০৮ ১৩:৩৯:৪৭ মিনিটে
banner

৮ টি মন্তব্য

  1. আরজু মূন জারিন মন্তব্যে বলেছেন:

    পড়ছি রহমান ভাই। অনেক ভাল লাগা। পরের পর্বের অপেক্ষায় আছি। শুভেচ্ছা জানবেন।

  2. এই মেঘ এই রোদ্দুর মন্তব্যে বলেছেন:

    আরবরা অসভ্য জাতি আসলেই

    ভাল লাগল

  3. ছাইফুল হুদা ছিদ্দিকী মন্তব্যে বলেছেন:

    সেই মহান ধর্মের ছোঁয়ায় সারা পৃথিবীর কোটি কোটি মানুষ সভ্য হয়েছে
    ঠিক বলেছেন।তবে সব আরব অসভ্য এটা ঠিক নয়।দেশ হিসেবে হয়তো গনতন্র নেই।
    আপনার লেখার সাথে কিছু ছবি যদি থাকে দিলো আরো ভালো হয়।

    • এস এম আব্দুর রহমান মন্তব্যে বলেছেন:

      ছবি আছে অনেক । কিন্তু কম্পিউটারের এত ঝামেলাইতো আমি বুঝি না । তবু চেষ্টা করবো । শুভ কামনা । ভাল থাকুন ।

  4. ছাইফুল হুদা ছিদ্দিকী মন্তব্যে বলেছেন:

    ছবি দিলে আপনার লেখাগুলো আরও বেশী ভালো হবে।

মন্তব্য করুন

মন্তব্য করতে লগিন করুন.

go_top